তোমার ছোঁয়ায় নীলপরীর স্বপ্নেরা

আজকাল কেমন জানি হয়ে যাচ্ছি
বোধ বুদ্ধিগুলো ঠিকমত কাজ করে না সবসময়
কেমন এক ঘোর পাওয়া মানুষের মত দিন কাটাচ্ছি
কেন তা নিজেও জানি না।

আজকাল আর কিছুই ভালো লাগে না আমার
অস্থির এক সময়ের কারাগারে বন্দী হয়ে করে যাচ্ছি বসবাস
কোথা দিয়ে দিন আসে কোথা দিয়ে কেটে যায় রাত
নিজেই তা বুঝতে পারি না।

ঘুম পরী এখন আর আমার চোখে এসে বসে না
একটি, দুটি, তিনটি, মাঝে মাঝে লিমিট ক্রস করে পাঁচটি ঘুমের বড়ি
খেয়ে যাচ্ছি রাতের পর রাত, ঘুম নামক সোনার হরিণের ছোঁয়া পেতে
হায়, সে যে কেন আমার কাছে ধরা দেয় না বুঝতে পারি না।

সকাল বেলা অসম্ভব ক্লান্তিতে বিছানা ছাড়ি মাঝে মাঝে
ঘুমের বড়ির নেশায় নেশাচ্ছন্ন হয়ে, সব কিছু কেমন যেন ধোঁয়া ধোঁয়া লাগে
তবুও উঠতে হয় মাঝে মাঝে, অফিসের খাতিরে; জীবন তো কাটাতে হবে,
পেটে ভাত যোগাতে, সংসার চালাতে; আমায় খাদ্য দেবে কে?

মাঝে মাঝে আর পারি না, যখন ঘুমের বড়িগুলো অবশ করে আনে
আমার চেতনাকে, স্বপ্ন-হীন এক নীদের দেশে পাঠিয়ে দিয়ে
ঔষধগুলোরও তো একটা নিজস্ব শক্তি আছে! যা আমার মধ্যে নেই
তোমাকে হারানোর পরে, তুমি অন্যদেশে পাড়ি জমানোর পর থেকে।

তবে কি আমার বাকি জীবনটা এভাবেই কাটিয়ে দেব?
দুজনার দুই ভুবনে বাস, শুধু কোন একদিন তোমাকে পাওয়ার অভিলাষ
যখন তোমার হয় দিন তখন আমার হয় রাত
কিংবা আমার যখন দিন তোমার তখন রাত।

আচ্ছা ঘুম-পরীরা কি আবার আমার চোখে নেমে আসবে কোনদিন?
রঙিন সব স্বপ্নগুলোকে সাথী করে, আমায় নীদের দেশে নিয়ে যাবে;
যখন তুমি পাশে এসে বসে আমার মাথায় হাত রাখবে
আমার চোখের পাতায় আঙ্গুল ছুঁয়ে ঘুম পাড়িয়ে দেবে
আমার বড্ড জানতে ইচ্ছে করে।

0 comments:

Post a Comment